cbn  

বিশেষ প্রতিবেদক :

কক্সবাজারে জেলা যুবলীগের সম্মেলন আগামী ২৯ মার্চ। শহরের পাবলিক লাইব্রেরীর শহীদ দৌলত ময়দানে জেলা যুবলীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে। দীর্ঘদিন পরে অনুষ্ঠিত এই সম্মেলনকে ঘিরে জেলা জুড়ে যুবলীগ রাজনীতিতে উৎসবের আমেজ বিরাজ করছে। সম্ভাব্য সম্মেলনকে ঘিরে জেলা জুড়ে চাঙ্গা হয়ে উঠেছে যুবলীগের রাজনীতি। দীর্ঘদিন পরে নতুন নেতৃত্ব পেতে যুবলীগের নেতা কর্মীদের আগ্রহের শেষ নেই। জেলা যুবলীগের নতুন নেতৃত্বে আসতে সভাপতি পদে একাধিক প্রার্থী থাকলেও বর্তমান সহ সভাপতি সোহেল আহমদ বাহাদুর সবচেয়ে এগিয়ে আছে। সুষ্ঠভাবে কাউন্সিল হলে সোহেল আহমেদ বাহাদুরের সভাপতি হওয়ার সম্ভাবনা সবচেয়ে বেশি বলে মনে করেন যুবলীগের তৃনমূলের নেতা কর্মীরা।  জেলা যুবলীগের সাধারন সম্পাদক পদে একাধিক যোগ্য প্রার্থী প্রতিদ্বন্ধিতায় এই পদে হাড্ডা হাড্ডি লড়াই হবে বলে জানিয়েছেন যুবলীগের নেতারা। তবে সোহেল আহমেদ বাহাদুর সভাপতি ও কক্সবাজার জেলা আওয়ামীলীগের কিংবদন্তী একেএম মোজাম্মেল হকের মেঝ ছেলে শহিদুল হক সোহেল সাধারন সম্পাদক হলে কক্সবাজারের যুবলীগ সবচেয়ে শক্তিশালী হবে মনে করছেন কক্সবাজারে আওয়ামীলীগ, যুবলীগ সহ সর্বস্তরের নেতাকর্মীরা। এই বিষয়ে জেলা আওয়ামীলীগের শীর্ষ নেতারাও একমত বলে জানাগেছে।

যুবলীগ নেতারা জানিয়েছেন কক্সবাজার আওয়ামীলীগের প্রতিষ্ঠাতা সাধারন সম্পাদক ও সাবেক এমএলএ এডঃ নুর আহমেদের পুত্র জেলা যুবলীগের সহ সভাপতি সোহেল আহমদ বাহাদুর শিক্ষিত ব্যক্তি। দেশের সর্বোচ্চ বিদ্যাপিট ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে সর্বোচ্চ ডিগ্রীর অধিকারী সোহেল আহমেদ বাহাদুর। দীর্ঘদিন ধরে রাজপথে থেকে জেলা জুড়ে যুবলীগকে সু সংগঠিত করেছেন ত্যাগী পরিচ্ছন্ন যুবনেতা সোহেল আহমদ বাহাদুর। জেলা জুড়ে তৃনমূলের নেতাকর্মী ও কাউন্সিলরদের সাথে সুখে-দুঃখে সব সময় আছেন তিনি। তাই কাউন্সিল হলে সোহেল আহমেদ বাহাদুরের সভাপতি পদে জয়ী হওয়ার সম্ভাবনা সবচেয়ে বেশি।

যুবলীগ নেতা কর্মীরা জানিয়েছেন, অপর সভাপতি প্রার্থী জেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সভাপতি মরহুম মোজাম্মেল হকের মেঝ সন্তান শহিদুল হক সোহেল। কক্সবাজারের আওয়ামীলীগের রাজনীতির ঐতিহ্যবাহী পরিবারের সন্তান শহিদুল হক সোহেল। কক্সবাজার শহরে তার অবস্থান অনেক শক্তিশালী। কক্সবাজারের বিএনপি -জামায়াতকে মোকাবেলায় শহিদুল হক সোহেল একজন পরিক্ষিত নেতা। তারমতো নেতা যুবলীগের নেতৃত্বে আসলে যুবলীগ অনেক বেশি শক্তিশালী হবে।

জেলা যুবলীগের সাধারন সম্পাদক পদে প্রতিদ্বন্ধিতা করবেন ককক্সবাজার একাধিক সাবেক সফল ছাত্রনেতা। এরা হলেন সদর উপজেলা যুবলীগের সভাপতি ইফতেখার উদ্দিন পুতু, পৌর যুবলীগ আহবায়ক শোয়েব ইফতেখার, সাবেক ছাত্রনেতা ডালিম বড়ুয়া, মাশেকুর রহমান বাবু, রামু উপজেলা চেয়ারম্যান রিয়াজুল আলম, তরুন যুবনেতা ইমতিয়াজ আলম চৌধুরী, জেলা যুবলীগ নেতা শাহাদাত হোসেন জুয়েল, টেকনাফ যুবলীগের সভাপতি সাবেক ছাত্রনেতা নুরুল আলম চেয়ারম্যান, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারন সম্পাদক ইমরুল হাসান রাশেদ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •