সুগন্ধা পয়েন্ট জমি দখলে উত্তেজনা, ৩০ দোকান উচ্ছেদ

শাহেদ মিজান, সিবিএন:
কক্সবাজার শহরের কলাতলী সুগন্ধা পয়েন্টে সরকারি জমি দখলে মেতে উঠেছে  সরকার দলীয় দু’পক্ষসহ তিনটি গ্রুপ। এসব ভূমিদস্যুরা ইতিমধ্যে সুগন্ধা সড়কের অধিকাংশ সরকারি জমি দখল করে ফেলেছে। আর সামান্য কিছু যা জমি অবশিষ্ট রয়েছে তা নিয়ে তাদের মধ্যে রীতিমতো লড়াই চলছে সেখানে। এরই অংশ হিসেবে গত রোববার রাত ১টার দিকে দু’পক্ষের মধ্যে তুমুল সংঘর্ষ হয়েছে। এতে কয়েকজন আহতও হয়েছে। তবে সরকারদলীয় সিনিয়র নেতাদের হস্তক্ষেপে বড় ধরণের সংঘর্ষ রোধ হয়েছে। এদিকে গতকাল সোমবার অভিযান চালিয়ে সদ্য তৈরি ৩০টি অবৈধ দোকান উচ্ছেদ করেছে প্রশাসন। সদর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) নাজিমের উদ্দীনের নেতৃত্বে অভিযান চালিয়ে এসব দোকান উচ্ছেদ করা হয়।

সদর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) নাজিম উদ্দীন জানান, সুগন্ধা সড়কের সরকারি জমিতে নির্মিত অন্তত ৩০টি অবৈধ দোকান উচ্ছেদ করা হয়েছে। দোকান সম্প্রতি রাতের আঁধারে তৈরি করেছে ভূমি দস্যুরা।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, সুগন্ধা সড়কের দু’পাশের প্রায় সব সরকারি জায়গা দখল করে ফেলেছে ভূমিদস্যুরা। সর্বশেষ হোটেল কক্স টুডের সড়কের পাশের জায়গাগুলোও দখল শুরু করে ভূমিদস্যুরা। গত ১৭দিন ধরে এই দখলযজ্ঞ চলছে। এই সময়ে গভীর রাতে টিন ও বাঁশ দিয়ে ৩০টির বেশি দোকান নির্মাণ করা হয়। অভিযোগ উঠেছে স্বেচ্ছাসেবক লীগের দু’গ্রুপের লোকজন  এই দখলযজ্ঞ চালাচ্ছে। এই দখল নিয়ে দু’পক্ষের মধ্যে কয়েকদিন ধরে উত্তেজনা চলছে।

অন্যদিকে কলাতলীর কিছু লোকজনও এই দখলযজ্ঞের সাথে জড়িত রয়েছে। ফলে তিন গ্রুপের মধ্যে পাল্টাপাল্টি দখল ও হুমকি-ধমকি চলছি। এরই অংশ হিসেবে গতকাল সোমবার গভীর রাতে দু’গ্রুপ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, দোকান নির্মাণ ও দখলকে কেন্দ্র করে জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের দুই শীর্ষ নেতার অনুসারীদের মধ্যে ওই সংঘর্ষ হয়। সংঘর্ষের সময় স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা ওসমান সরওয়ার আলম চৌধুরী ও হাজী জসিমসহ বেশ কয়েকজন স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতাকর্মী, ছাত্রলীগ নেতাকর্মী ও কলাতলী এলাকার কিছু যুবককে দেখা গেছে। সংঘর্ষে জড়িতরা ছুরি, কিরিচ ও লাঠি নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। প্রায় আধা ঘণ্টা ধরে তাদের মধ্যে মারামারি ও ধাওয়া-পাল্টাধাওয়া চলে। এসময় কিরিচের কোপে একজনের মাথায় মারাত্মক জখমও হয়েছে। নানাভাবে আহত হয়েছে আরো কয়েকজন। তবে সরকারী দলের সিনিয়র কয়েকজন নেতা ও পুলিশের হস্তক্ষেপে শেষ মুহূর্তে তা নিয়ন্ত্রণে আসে।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে সদর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) নাজিমের উদ্দীন বলেন, ‘সুগন্ধা পয়েন্টে সরকারি মূল্যবান জায়গা দখল করে সেখানে অবৈধ স্থাপনা নির্মাণ করছে ভূমিদস্যুরা। জেলা প্রশাসকের নির্দেশে অভিযান চালিয়ে সেগুলো উচ্ছেদ করা হয়েছে।’

সর্বশেষ সংবাদ

ঈদগাঁওতে জমছে নিবার্চনী লড়াই : ভোট ব্যাংকে আঘাত হানতে মরিয়া প্রার্থীরা

৪০ হাজার ‘নিষিদ্ধ’ সিগারেটসহ দুই রোহিঙ্গা আটক

নিউজিল্যান্ডের প্রধান পত্রিকাগুলোর প্রথম পাতায় ‘সালাম’

নিউজিল্যান্ডে জুমার নামাজ সরাসরি সম্প্রচার, বিশ্বজুড়ে তোলপাড়

২৩ মার্চ বিশ্ব আবহাওয়া দিবস : কক্সবাজারে বিভিন্ন কর্মসূচী গ্রহণ

আচরণবিধি লঙ্ঘন, মহেশখালীতে দুই প্রার্থীকে জরিমানা

কক্সবাজারে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ৩

কক্সবাজারে সাংবাদিকের মোটর সাইকেল চুরি

সন্ত্রাস, চাঁদাবাজ ও জবর-দখলমুক্ত নিরাপদ পেকুয়া গড়তে চান আবুল কাশেম

ভাসানচরে পুনর্বাসনকে স্বাগত জানালো ইউএনএইচসিআর

নিরাপদ ও পরিচ্ছন্ন শহর গড়তে বই মার্কাকে বিজয়ী করুন: রশিদ মিয়া

শেখ হাসিনার মনোনিত প্রার্থী জুয়েলকে ভোট দিয়ে জয়যুক্ত করুন : মেয়র মুজিবুর রহমান

বঙ্গবন্ধু প্রেমিকেরা কোনদিন নৌকার সাথে বেঈমানী করতে পারেনা

কক্সবাজার শহরে ইভটিজিংয়ের প্রতিবাদ করায় সংবাদকর্মীর উপর হামলা

উপজেলা পর্যায়ে শ্রেষ্ঠ প্রধান শিক্ষক কোরক বিদ্যাপীঠের প্রধান শিক্ষক নুরুল আখের

উপজেলা পর্যায়ে আবারও শ্রেষ্ঠ শিক্ষক অধ্যাপক পদ্মলোচন বড়ুয়া

কক্সবাজার মার্কেট মালিক ফোরাম গঠিত

লাকড়ি চুরির আপবাদে দুই শিশুকে গাছে বেঁধে নির্যাতন

কক্সবাজারের ৬ টি উপজেলায় রোববার সাধারণ ছুটি ঘোষণা

নবীন আইনজীবীদের রাষ্ট্রীয়ভাবে ন্যূনতম ৫ বছর ভাতা দেয়া উচিৎ : ব্যারিস্টার খোকন