সিরিয়ার ঘৌতায় মৃতের সংখ্যা হাজার ছাড়িয়েছে

সিরিয়ার পূর্বাঞ্চলীয় ঘৌতায় সরকারি বাহিনীর বিমান হামলায় নতুন করে আরও কমপক্ষে ৪২ জন বেসামরিক নিহত হয়েছে। গত মাসের ১৮ তারিখ থেকে বিদ্রোহী অধ্যুষিত এলাকায় অভিযান শুরু করে সরকারি বাহিনী। খবর আল জাজিরা।

দেশটিতে ব্রিটেন ভিত্তিক সিরিয়ান অবজারভেটরি ফর হিউম্যান রাইটস জানিয়েছে, প্রায় এক মাস ধরে চলা দফায় দফায় বিমান হামলায় ১ হাজারের বেশি বেসামরিক নিহত হয়েছে। এছাড়া আহত হয়েছে আরও ৪ হাজার ৩৭৮ জন। এদের মধ্যে ২২৭ জন শিশু এবং ১৪৫ জন নারী।

gouta

খবরে আরও জানানো হয়েছে, শনিবার দামেস্ক থেকে ১০ কিলোমিটার পূর্বের মেসরাবা শহর দখলের মধ্য দিয়ে দৌমা শহরকে ঘিরে ফেলেছে সরকারি বাহিনী। মুদেইরা দখলের মধ্য দিয়ে বিদ্রোহী নিয়ন্ত্রিত দৌমা ও হারাসতা শহরের মধ্যে যোগাযোগ বন্ধ হয়ে গেছে। জাতিসংঘের এক হিসাব অনুযায়ী পূর্বাঞ্চলীয় ঘৌতায় প্রায় ৪ লাখ বেসামরিক আটকা পড়েছে।

মানবাধিকার কর্মী নূর আদম আল জাজিরাকে বলেন, দামেস্কের পূর্বাঞ্চলীয় জোবার শহরে বিমান হামলায় ৮ জন নিহত হয়েছে। অপরদিকে দৌমায় হামলায় একই পরিবারের ১৬ জন নিহত হয়েছে। এছাড়া হারাসতা, জামালকা ও আরবিন শহরে আরও বেশ কয়েকজনের মৃত্যু হয়েছে।

শনিবার সিরিয়ান অবজারভেটরি ফর হিউম্যান রাইটস আল জাজিরাকে জানায়, পূর্ব ঘৌতাকে এখন তিন ভাগে বিভক্ত করা হয়েছে। দৌমা এবং তার চারপাশের এলাকা, পশ্চিমাঞ্চলীয় হারাসতা ও এর দক্ষিণ দিকের বাকি এলাকাগুলোকে আলাদা করা হয়েছে।

gouta

মানবাধিকার সংস্থাটি জানিয়েছে, গত ১৮ ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু হওয়া অর্থাৎ ২১ দিনে সরকারি বাহিনীর অভিযানে এখন পর্যন্ত কমপক্ষে এক হাজার ৯৯ জন নিহত হয়েছে।

পূর্ব ঘৌতার এক-তৃতীয়াংশের নিয়ন্ত্রণ এখন সিরীয় সেনাদের হাতে রয়েছে। বিমান হামলা শুরুর দু’সপ্তাহ আগে থেকেই ওই অঞ্চলের কয়েক লাখ মানুষ খাদ্য ও ওষুধ সঙ্কটে দিন কাটাচ্ছেন। দু’সপ্তাহ আগে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন ঘোষণা দিয়েছিলেন সাধারণ মানুষকে পালানোর সুযোগ করে দিতে যুদ্ধে প্রতিদিন ৫ ঘণ্টা ‘মানবিক বিরতি’ থাকবে। তবে সেখান থেকে কেউ পালিয়ে যেতে পেরেছে- এমন কোনো খবর নেই।

তাছাড়া ত্রাণবাহী গাড়ি সেখানে ঢুকতে পারলেও নির্ধারিত কাজ শেষ না করেই তাদের ফিরে আসতে হচ্ছে। ফলে খাদ্য সঙ্কটে চরম দুর্দশায় দিন কাটাচ্ছে লাখ লাখ মানুষ।

কক্সবাজার নিউজ সিবিএন’এ প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ।

সর্বশেষ সংবাদ

বিএনপি নেতা হাবিব-উন-নবী খান সোহেল গ্রেফতার

রামুর গর্জনিয়ায় বজ্রপাতে একই পরিবারের নারীসহ আহত ৫

কক্সবাজারে প্রথম নির্মিত হচ্ছে সি,আই কোম্পানি ইন্ডাস্ট্রি

মহেশখালী পৌর ছাত্রদলের আংশিক কমিটি বিলুপ্ত ঘোষণা

এসপি মাসুদ হোসাইনের কক্সবাজারে যোগদান, ডিসি’র সাথে সৌজন্য সাক্ষাত

জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে দূর্যোগ ব্যবস্থাপনার জন্য ইওসি স্থাপন

পেকুয়ায় প্রবাহমান খালে মাটি ভরাট করলেন প্রভাবশালী

কোনাখালীতে দোকান পুড়ে ছাই

বুবলীর সঙ্গে শাকিবের বিয়ে, গুঞ্জন নাকি সত্যি?

সাবেক ডিসি ও ইউএনওসহ তিনজনের কারাদণ্ড

ইয়াবাসহ আইন মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তা আটক

চকরিয়া উগ্রবাদ ও সহিংসতা প্রতিরোধে দক্ষতা উন্নয়ন প্রশিক্ষণ

চকরিয়ায় কথিত চিকিৎসকের ভূল চিকিৎসার শিকার বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থী

রামুর গর্জনিয়ায় বজ্রপাতে একই পরিবারের নারীসহ আহত ৫

মালুমঘাটে প্রভাবশালীর সহযোগিতায় চলছে বাল্য বিবাহ!

চট্টগ্রাম কলেজে ছাত্রলীগের কমিটি নিয়ে দফায় দফায় সংঘর্ষ

নিরাপদ সড়ক চাই: নিজে বাঁচব, অপরকে বাঁচাব

বিএনপির ১৭৩ প্রার্থী প্রায় চূড়ান্ত

চবি উপাচার্যের সাথে মিশর আল আযহার বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিনিধি দলের সাক্ষাৎ

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যকে সংবর্ধনা