মো. রেজাউল করিম, ঈদগাঁও, কক্সবাজার :

ঈদগাঁও বাজারের প্রবীণ ব্যবসায়ী আলহাজ¦ নুর আহমদ সওদাগরের জানাযায় বিপুল মানুষের সমাগম ঘটে। ১৫ জানুয়ারী সকাল ১০টায় বাজারের হাইস্কুল মাঠে তার এ জানাযা অনুষ্ঠিত হয়। পরে তাকে জুমবাড়ী কবরস্থানে দাফন করা হয়। জানাযার পূর্বে আগত মুসল্লীদের উদ্দেশ্যে সংক্ষিপ্ত বক্তব্য দেন জেলা বিএনপির অন্যতম সহ-সভাপতি এম. মমতাজুল ইসলাম, কক্সবাজার জেলা পরিষদ প্যানেল চেয়ারম্যান সোহেল জাহান চৌধুরী, বিশিষ্ট আলেমেদ্বীন হাফেজ কামাল আহমদ, ফার্মেসী ব্যবসায়ী ডা. আলহাজ¦ সিরাজুল মোস্তফা নূরী, মরহুমের জামাতা মুস্তাফিজুর রহমান, মরহুমের দু’পুত্র আহমদ ফারুক ও ফয়েজ আহমদ। জানাযায় ঈদগাঁও চেয়ারম্যান ছৈয়দ আলম, ঈদগাঁও কেন্দ্রীয় জামে মসজিদ সেক্রেটারী জসিম উল্লাহ মিয়াজী, ঈদগাঁও বাজার সভাপতি সিরাজুল হক, উপজেলা বিএনপি সাধারণ সম্পাদক শওকত আলম শওকত, ঈদগাঁওর মেম্বার মমতাজ আহমদ, জালালাবাদের মেম্বার নুরুল আলম, মেম্বার মোক্তার আহমদসহ বিশিষ্ট ব্যবসায়ীবৃন্দ ও নানা শ্রেণিপেশার লোকজন ও বিপুল সংখ্যক এলাকাবাসী অংশগ্রহণ করেন। এর আগের দিন দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে বাড়ীতে গোসল করা অবস্থায় আকষ্মিক ঢলে পড়লে তাকে বাজারের ডা. ইউসুফ আলীর নিকট নেয়া হলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে মৃত ঘোষণা করেন। মরহুমের স্ত্রী, ৪ মেয়ে, ৩ ছেলে, নাতী-নাতনীসহ অনেক শুভাকাঙ্খী, সহকর্মী ও সহযোদ্ধা রয়েছেন। তিনি জালালাবাদ বিএনপির সহ-সভাপতি, বাঁশঘাটা ফার্নিচার ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি ও জেলা ভোক্তা অধিকার কমিটির সদস্যসহ নানা দায়িত্বে অধিষ্ঠিত ছিলেন। তিনি বাঁশঘাটা হাজী নুর ফার্নিচার মার্টের স্বত্ত্বাধিকারী ছিলেন। তার মৃত্যুতে উপজেলা ও ইউনিয়ন বিএনপি ও সহযোগী পরিবারসহ এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে। বক্তারা দৃঢ়চেতা, সদালাপী, স্পষ্টবাদী, সৎ ও ত্যাগী এ নেতা ও ব্যবসায়ীর কর্মময় জীবনের বিভিন্ন দিক স্মরণ করেন তাদের বক্তব্যে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •