বার্তা পরিবেশক :

জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে গতকাল ১০ জানুয়ারি জেলায় কর্মরত পত্রিকার হকারদের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরণ করা হয়েছে। বুধবার রাত ৮ টায় দৈনিক কক্সবাজার একাত্তর পত্রিকার কার্যালয় থেকে জেলার বিভিন্ন স্থান থেকে আসা প্রায় ৫০ জন পত্রিকার হাকারদের মাঝে কম্বল বিতরণ করেন সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ নোমান হোসেন প্রিন্স। বিতরণ কালে উপস্থিত ছিলেন মহেশখালী উপজেলা নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট (এসিল্যান্ড)।

দৈনিক কক্সবাজার একাত্তর পত্রিকার প্রকাশক ও প্রধান সম্পাদক মোঃ বেলাল উদ্দিন বেলাল, জেলা পরিষদ সদস্য ও দৈনিক কক্সবাজার একাত্তর পত্রিকার সম্পাদক মাহমুদুল করিম মাদু,নির্বাহী সম্পাদক এইচ.এম নজরুল ইসলাম,মফস্বল সম্পাদক স.ম ইকবাল বাহার।

এ সময় সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বলেন, বিত্তবান মানুষেরা গরম কাপড় ক্রয় করে শীত নিবারণ করলেও গরিব ও ছিন্নমূল মানুষেরা টাকার অভাবে গরম কাপড় ক্রয় করতে পারছে না। তীব্র এই শীতে অসহায় দরিদ্র, ছিন্নমূল ও নিম্ন আয়ের মানুষের জীবনে নেমে এসেছে চরম দুর্ভোগ। প্রচন্ড শীতের কারণে দিনমজুর শ্রেণির মানুষ কাজে যেতে পারছে না। রাতে এসব মানুষ শীতে খুব কষ্ট পাচ্ছে। এরাই প্রকৃত শীতার্ত। তাদের কষ্ট কিছুটা লাঘব করার জন্যে বর্তমান সরকার নানা উদ্দ্যোগ গ্রহণ করেছে। একই সাথে শীতার্ত মানুষের পাশে দাড়াতে সকল বিত্তবানদের এগিয়ে আশার আহবান করেন।

এসময় অন্যানদের মাধ্য উপস্থিত ছিলেন, দৈনিক কক্সবাজার একাত্তর পত্রিকার বিজ্ঞাপন ম্যানেজার তৌহিদুল ইসলাম,অফিস সহকারী হেলাল উদ্দিন,জেলা সংবাদপত্র হকার সমিতির সভাপতি মোঃ শহিদুল ইসলাম,সাধারণ সম্পাদক শফিকুর রহমান,কক্সবাজার হকার্স কল্যাণ সমিতির সভাপতি জহির আহমদ,সাধারণ সম্পাদক মোঃ আমজাদ হোসেন,চকরিয়া সংবাদপত্র হকার সমিতির সভাপতি মোঃ ইউনুছ,সাধারণ সম্পাদক মোঃ বাবুল সহ তিন সংগঠনের বিপুল সংখ্যা নেতৃবৃন্দ।

কম্বল বিতরণ কালে প্রধান অতিথি আরো জানান, সরকারিভাবে যেসব শীতবস্ত্র পাওয়া গেছে তা ইতোমধ্যে শীতার্তদের মাঝে বিতরণ করা হয়েছে। আরও যে চাহিদাপত্র পাঠানো হয়েছে। হাতে আসলে যতদ্রুত সম্ভব শীতার্তদের মধ্যে বিতরণ করা হবে। এবং চাহিদায় থাকা অন্য শীতবস্ত্র পাওয়া গেলে সেগুলোও দ্রুত দুস্থদের মধ্যে বিতরণ করতে জেলা প্রশাসন কাজ করে যাবে।

দৈনিক কক্সবাজার একাত্তর অফিস পরিদর্শন করলেন সদর ইউএনও

বার্তা পরিবেশক :

জেলার বহুল প্রচারিত ও প্রকাশিত দৈনিক কক্সবাজার একাত্তর অফিস পরিদর্শন করেছেন সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ নোমান হোসেন প্রিন্স। গত ১০ জানুয়ারি সন্ধ্যায় পত্রিকা পত্রিকার কার্যক্রম,অফিস এবং সাংবাদিকতার মান দেখে সন্তোষ প্রকাশ করে বলেন, সমাজের অসঙ্গতি দূর করতে সাংবাদিক এবং সংবাদপত্রের ভূমিকা অনন্য।

দুর্নীতি দূর করতে সাংবাদিকদের সাহসী ভূমিকা রাখতে হবে। অনুসন্ধানী প্রতিবেদনের মাধ্যমে সমাজের সকল অনিয়ম, দুর্নীতি এবং উন্নয়ন তুলে ধরতে হবে মানুষের কাছে। পত্রিকা সমাজ এবং জাতি গঠনে অগ্রণী ভূমিকা রাখে। কক্সবাজারের সংবাদপত্র গুলো মানসম্মত এবং সাংবাদিকদের আছে যোগ্যতা।

রাত ৮টায় সদর উপজেলা কর্মকর্তা মোঃ নোমান হোসেন ও মহেশখালী উপজেলা নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট (এসিল্যান্ড)…. দৈনিক কক্সবাজার একাত্তর অফিসে আসলে ফুল দিয়ে বরণ করে নেন পত্রিকার প্রকাশক ও প্রধান সম্পাদক মোঃ বেলাল উদ্দিন বেলাল, নির্বাহী সম্পাদক এইচ.এম নজরুল ইসলাম,মফস্বল সম্পাদক স.ম.ইকবাল বাহার। পত্রিকায় কর্মরত সাংবাদিকবৃন্দ এসময় উপস্থিত ছিলেন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •