মহেশখালীতে ২ গ্রুপের দ্বন্দে আগুনে জ্বলেছে ৬টি বাড়ী

ছালাম কাকলী:

মহেশখালীতে  ২ গ্রুপের দ্বন্দের কারণে কালাগাজী পাড়ার লোকজনের প্রাণ যায় যায় অবস্থা হয়েছে। এমনকি গত ৩ সপ্তাহে ২ খুনের ঘটনাকে কেন্দ্র করে এলাকার নারী-পুরুষের ঘুম হারাম হয়ে গেছে। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে জালাল বাহিনীর সদস্যরা বুধবার ভোরে ঐ এলাকার ৬টি বাড়ীর মালামল লুট করে আগুন দিয়ে জ্বালিয়ে দিয়েছে। সস্ত্রাসীদের ভয়ে এ আগুন নিভাতে এগিয়ে না আসায় সন্ধায় ৬টা পর্যন্ত এ আগুন জ্বলেছে ।

হোয়ানক ইউয়িননের কালাগাজি পাড়াটি এ সময়ে মহেশখালীর শান্ত এলাকা নামে পরিচিতি ছিল। কিন্তু জোনাব আলী মেম্বার ও জালাল বাহিনীর ক্ষমতা প্রভাব বিস্তারকে কেন্দ্র করে গত ৫ বছর ধরে উভয় গ্রুপের বন্দুক যুদ্ধে এস,আই, পরাশ বড়ুয়া সহ ১১ জন খুন হয়েছে। ঐ এলাকার আইন শৃখলা রক্ষায় ৭ সদস্য বিশিষ্ট একটি অস্থায়ী পুলিশ ক্যাম্প বসানো হয়েছে। কিন্তু পুলিশ জালাল বাহিনীর পক্ষ নেয়ায় জালাল বাহিনীর সদস্যরা এখন রাস্তাঘাটে চলাচল করতে পারায় এবাহিনীর সদস্যরা বীরদর্পে বিভিন্ন জনের কাছ থেকে নির্ধারিত টাকা আদায় করে নিচ্ছে। এবাহিনী প্রকাশ্যে পুলিশের ছত্রছায়ায় এলাকায় ঘুরে বেড়ালেও জোনাব আলী মেম্বারের লোকজনের এলাকা ছেড়ে অন্যত্রে পালিয়ে বেড়াচ্ছে। এ সুযোগে জালাল বাহিনীর সদস্যরা এলাকার নিরীহ লোকজনের মালামাল লুঠ করে নিয়ে যাচ্ছে। এ অবস্থায় প্রতিবাদ করতে গিয়ে জালাল বাহিনীর গুলিতে জোনাব আলী মেম্বারের পুত্র গত ৩ সপ্তাহ পূর্বে আবু কাইছার নিহত হয়েছে। এ নিহতের ঘটনা ব্যাপারে পুলিশ মামলা না নেয়ায় নিহতের স্ত্রী ও আত্মীয় স্বজনরা কক্সবাজারে সাংবাদিক সম্মেলন করেছে। সর্বশেষ গত ৮ জানুয়ারী রাত ৮টায় জোনাব আলী মেম্বারের লোকজন কালাগাজি পাড়ার বাজারে ঢুকে আবুলকালামের পুত্র আবছারকে হত্যা করে পালিয়ে যায়। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে জালাল বাহিনীর লোকজন শুক্রবার ভোরে কালাগাজির পাড়ার ৬টি বাড়ীর মালামাল লুটপাঠ করার পর আগুন দিয়ে জালিয়ে দিয়েছে।

এলাকাবাসির অভিযোগ পুলিশ এক পক্ষে নেয়ায় এলাকায় আরো খুন বেড়ে গেছে। এদিকে মহেশখালী থানার অফিসার ইনচার্জ প্রদীপ দাশ থেকে জানতে চাইলে তিনি জানান ৬টি বাড়ীতে আগুন দেয়ার কথা তিনি শুনেননি।

সর্বশেষ সংবাদ

সাংবাদিক হাফিজ পোয়াংগেরখিল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সভাপতি নির্বাচিত

ফাঁসিয়াখালীতে নির্বাচনী সহিংসতা, সাংবাদিক বাপ্পির ওপর সন্ত্রাসী হামলা

ছেলেধরা গুজবের বিরুদ্ধে সরকারের কঠোর হুঁশিয়ারি

জি এম কাদেরকে চেয়ারম্যান মানেন না রওশন

কক্সবাজার জেলা প্রশাসন জনপ্রশাসন পুরস্কারের জন্য মনোনীত

কক্সবাজার শহরে ২ হাজার ইয়াবাসহ নারী-পুরুষ আটক

মাসুদ রানা ছবির বাজেট ৮৩ কোটি টাকা

হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদ থেকে প্রিয়া সাহা বহিষ্কার

নিষিদ্ধ সময়ে মাছ ধরতে দেয়ার নামে জেলেদের থেকে টাকা আত্মসাৎ

দুদক পরিচালক এনামুল বাছির গ্রেফতার

কক্সবাজার পৌরসভার সাথে কাজ করতে চায় জাপানী সাহায্য সংস্থা ‘জাইকা’

কুতুবদিয়ার বড়খোপ উপ-নির্বাচনে নৌকার প্রার্থীর পক্ষে প্রকাশ্যে এমপি’র প্রচারণার অভিযোগ

ইন্দোনেশিয়ার ওয়ার্ল্ড ভিলেইজ লিডারশিপ ক্যাম্পের জন্য নির্বাচিত ওমর ফারুক

সদর উপজেলা কমিউনিটি পুলিশিং এর পুর্ণাঙ্গ কমিটি অনুমোদন

একজন ডা. বুলবুল বেঁচে থাকে পথ পরিক্রমায়

উখিয়ায় সংবাদকর্মীর উপর হামলাকারী আতিক গ্রেফতার

বদর মোকাম জামে মসজিদকে দেশের মডেল মসজিদ হিসেবে গড়ে তোলা হবে

উন্নয়ন ত্বরান্বিত করতে নৌকায় ভোট দিন -মুজিবুর রহমান

ফাঁসিয়াখালী ইউপি উপ-নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থী ফরিদকে বিএনপির সমর্থন

চকরিয়ায় ইয়েস’র উদ্যোগে তথ্য অধিকার বিষয়ক ক্যাম্পেইন