লোহাগাড়ায় অন্যকে ফাঁসাতে গিয়ে পুলিশের হাতে আটক ২

জাহেদুল ইসলাম, লোহাগাড়া: 

লোহাগাড়া উপজেলার পদুয়া এলাকায় পূর্ব শত্রুতার জের ধরে মোহাম্মদ সাইদ (১৭) নামের ১ ছেলের ব্যাগের ভিতর ৩ রাউন্ড তাজা কার্তুজ দিয়ে ফাঁসাতে গিয়ে পুলিরেশর হাতে ফেঁসে গেলেন ২ জন। তারা হলেন, মোহাম্মদ মাহি উদ্দিন (২৮) ও শুবল দাশ(২৬)। এ ব্যাপারে লোহাগাড়া থানায় ৭ জনকে আসামী করে পৃথক পৃথক ২টি মামলা রুজু হয়।

জানা যায়, গত ২৬ ডিসেম্বর সন্ধ্যায় লোহাগাড়া উপজেলার পদুয়া বাজারে উত্তর পাশে হলুদ,আব্দুস ছবুরের মরিচ ভাঙ্গার মিশনের দোকানের সামনে থেকে ভিকটিম সাইদকে জোর পূর্বক তুলে পদুয়া বড় মন্দিরের উত্তর পাশে নিযে গিয়ে মারধর করে ভিকটিমের ব্যাগের ভিতর ৩টি তাজা কার্তুজ দিয়ে পুলিশে খবর দেয়। খবর পেয়ে লোহাগাড়া থানা পুলিশের এসআই সোহরাওয়ার্দী সঙ্গয়ি ফোর্স নিয়ে ঘটনাস্থল হতে ভিকটিম উদ্ধার করে।

পুলিশ আসার খবর পেয়ে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টার সময় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানা হেফাজতে নিয়ে আসে। পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে বেরিয়ে আসলেন থলের বিড়াল। ফেঁসে গেলেন মহিউদ্দিন ও শুবল। পালাতক রয়েছেন মামলার আসামী, পদুয়া মমতাজ মেম্বার বাড়ির সাব্বির আহমদের পুত্র মো: জাহেদুল ইসলাম,নিজ তালুকক এলাকার মৃত সৈয়দ আহমদেও পুত্র মো: হেলাল উদ্দিন, ফরিয়াদিওকুল এলাকার আবুল কাশেমের পুত্র মো: সেলিম, নয়া পাড়া এলাকার তৌহিদুর ইসলাম ও সেগুন বাগান জলদাশ পাড়ার মৃত আবদুল মতলবের পুত্র আব্দুর আজিজ।

ভিকটিম সাইদ সাতকানিয়া উপজেলার উত্তর ছদাহা হাঙ্গর রাজঘাটা এলাকার আহমদ কবিরের পুত্র। সে গাছবাড়িয়া সরকারি করেজের একাদশ শ্রেণীর ছাত্র।

সাইদ জানান, গত ৪/৫ মাস পূর্বে মামলার আসামীদের সাথে মারামারি হয়। তারই জের ধরে ঘটনার দিন তাকে আটক করে মারধর করে। তার ব্যাগের ভিতর জোর পূর্বক ৩ টি কার্তুজ দিয়ে ফাঁসাতে চেয়েছিল। কিন্তু পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে সে বেঁচে গেল। উল্টো ফেঁসে গেলেন প্রকৃত আসামীরা।

লোহাগাড়া থানার অফিসার ইনচার্জ শাহজাহান পিপিএম বার বলেন, এক কলেজ ছাত্রকে পূর্ব শত্রুতার জের ধওে মরধর করে ৩ টি কার্তুজ দিয়ে পুলিশে খবর দিলে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ভিকটিম ও ঘটনার সাথে জড়িতদের থানায় নিয়ে আসে। পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে বেরিয়ে এসেছে প্রকৃত রহস্য। ভিকটিমকে তার পরিবারের কাছে হস্থান্তর করা হয়। দৃত ও পালাতক আসামীদেও পরস্পর যোগসাজসে ও জ্ঞাতসাওে বে-আইনী ভাবেআগ্নেয়াস্ত্রে ও কার্তুজ তাহাদের হেফাজতে রাখিয়া ১৮৭৮ সনের আইনের ১৯(এফ) অপরাধ করেছে। আসামীদেও বিরুদ্ধে অস্ত্র আইনে মামলা রুজু হয়। ভিকটিমের বড় ভাই শহিদুর ইসলাম বাদী হয়ে পৃথক আরেকটি মামলা রুজু করেন।

এ ঘটনায় চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়। ঘটনার প্রকৃত রহস্য উদঘাটনের জন্য এলাকাবাসী লোহজাগাড়া ওসি শাহজাহান পিপিএম বারকে সাধুবাদ জানান।

cbn

সর্বশেষ সংবাদ

কক্সবাজার সদর থানা পুলিশের অভিযানে গ্রেফতার- ২৭

পেকুয়ায় সংগ্রামের জুমে চলছে বালি উত্তোলন

B a n g a b a n d h u : The epic poet of politics

সদর উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতির উপর হামলার প্রতিবাদে জেলা ছাত্রলীগের মিছিল-সমাবেশ

দৈনিক সৈকত সম্পাদকের পিতা হাবিবুর রহমানের ৩৩তম মৃত্যুবার্ষিকী আজ

কক্সবাজার জেলা জয় বাংলা তথ্য-প্রযুক্তি লীগের আহবায়ক তুহিনের বিবৃতি

আজ শুভ জন্মাষ্টমী: কক্সবাজারে নানা আয়োজন

কক্সবাজার ইনার হুইল ক্লাবের শিক্ষা উপকরণ বিতরণ

টেকনাফে যুবককে তুলে নিয়ে হত্যা করলো রোহিঙ্গা সন্ত্রাসীরা

সব ধরনের মতামত প্রকাশের নিরাপত্তা আছে?

চীন বলেছে মধ্যস্থতার দায়িত্ব নিয়েছি : মায়ানমার কিন্তু মুখ খুলছেনা

যে মসজিদ নির্মাণে কাজ করে ২ লাখ ১০ হাজার শ্রমিক

সুশিক্ষায় শিক্ষিত হয়ে দেশের জন্য কাজ করতে হবে

জেলা আ.লীগের চিকিৎসা ক্যাম্প শুক্রবার, চিকিৎসা পাবে ৫হাজার মানুষ

চকরিয়ায় দুই হাজার মিটার নিষিদ্ধ কারেন্ট জাল আগুনে পুড়ে ধ্বংস

নিরহঙ্কার জীবন : মানবিক উৎকর্ষের চাবিকাঠি

JOB VACANCY ANNOUNCEMENT – HumaniTerra International (HTI)

প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদ

বিদ্যুৎস্পৃষ্টে সদ্যবিবাহিত যুবকের মৃত্যু ইসলামাবাদে

আগামী ১০ বছরে আপনি মারা যাবেন কিনা জানা যাবে ব্লাড টেস্টে!