লামায় তামাকের বিকল্প ইক্ষু চাষ উন্নয়নের কৃষক মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত

মো. নুরুল করিম আরমান, লামা: 

মাটি, পরিবেশ ও মানুষের জন্য ক্ষতিকর তামাকের বিকল্প হিসেবে পার্বত্য চট্টগ্রাম এলাকায় ইক্ষু চাষ উন্নয়নের কৃষক মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত হয়েছে। সোমবার দুপুরে কৃষি গবেষণা ফাউন্ডেশনের অর্থায়নে বান্দরবানের লামা পৌরসভা এলাকার শিলেরতুয়া গ্রামের কৃষক সুইচিং মার্মার আখ ক্ষেতে এ মাঠ দিবসের আয়োজন করে বান্দরবান সুগারক্রপ গবেষণা ইন্সটিটিউট। এ উপলক্ষ্যে পার্বত্য চট্টগ্রাম এলাকায় ইক্ষু গবেষণা ও উন্নয়ন জোরদারকরণ প্রকল্পের প্রকল্প ব্যবস্থাপক ড. এবিএম মফিজুর রহমানের সভাপতিত্বে আয়োজিত মাঠ দিবসে পার্বত্য চট্টগ্রাম এলাকায় ইক্ষু গবেষণা ও উন্নয়ন জোরদারকরণ প্রকল্পের রোগ তত্ব বিভাগের প্রধান ড. মো. সামছুর রহমান, প্রকল্পের এগ্রো প্রসেসিং এন্ড ভ্যালু এডিশন এক্সপার্ট কৃষিবিদ মো. মাহবুবুল হক, উপজেলা সহকারী কৃষি সম্প্রসারণ কর্মকর্তা স্বপন দাশ, সাংবাদিক মো. নুরুল করিম আরমান অতিথি ছিলেন। দিবসে উপজেলার ৭০ জন কৃষক-কৃষানী অংশ গ্রহন করেন। দিবসটির পরিচালনা করেন, বাংলাদেশ সুগারক্রপ গবেষণা ইনস্টিটিউটের বান্দরবান জেলার উর্ধ্বতন বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ক্যছেন। দিবসে অনুভুতি প্রকাশ করে আখ চাষী সুইচিং মং মার্মা বলেন, এক সময় তামাক চাষ করতাম। বাংলাদেশ সুগারক্রপ গবেষণা ইনস্টিটিউটের বৈজ্ঞানিক সহকারী বসন্ত কুমার তঞ্চঙ্গ্যার মাধ্যমে উদ্বুদ্ধ হয়ে গত বছর ৩৩ শতক জমিতে আখ চাষ করি। এতে জমি লাগিয়ত, চারা, সার, কীটনাশকসহ সর্বমোট ৫০ হাজার টাকা খরচ হয়েছে। তাছাড়া পরিশ্রমও কম হয়েছে। আখ বিক্রি করে ইতিমধ্যে ১ লাখ ৪২ হাজার টাকা পেয়েছি। আরও প্রায় ২২ হাজার টাকার আখ ক্ষেতে আছে। তবে ঘুর্নিঝড় মোরার আঘাতে আরও প্রায় আড়াই হাজার আখ ভেঙ্গে যায়। এছাড়া আখ চাষের পাশাপাশি একই জমিতে সাথী ফসল হিসেবে গাজর, মুলা ও গোল আলু চাষ করে ১৫ হাজার টাকা আয় হয়।

দিবসে বক্তারা বলেন, তামাক চাষের তুলনায় আখ চাষে খরচ ও পরিমশ্রম অনেক কম। আর লাভও অনেক বেশি। অপরদিকে, তামাক চাষের ফলে জমি উর্বরতা হারানোর পাশাপাশি তামাক চাষী নিজের, পরিবারের অন্য সদস্যদের ও পরিবেশের অপূরণীয় ক্ষতি সাধন করে থাকে। তাই সবাইকে নিজের, পরিবেশের ও দেশের কথা চিন্তা করে তামাক চাষ পরিহার করে বিকল্প আখ চাষে এগিয়ে আসতে হবে। আর এ চাষে সার্বিক সহযোগিতার আশ^াস দেন বক্তারা।

বাংলাদেশ সুগারক্রপ গবেষণা ইনস্টিটিউটের বৈজ্ঞানিক সহকারী বসন্ত কুমার তঞ্চঙ্গ্যার বলেন, ক্ষতিকারক তামাক চাষের আগ্রাসন দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে। তাই তামাক চাষ থেকে ফেরাতে বিকল্প হিসেবে ২৮জন কৃষককে গবেষণা ও প্রদর্শনীর মাধ্যমে আখের চাষ দেয়া হয়েছে।

সর্বশেষ সংবাদ

অক্টোবরের পর রোহিঙ্গা নির্যাতনের তদন্ত শুরু করতে চায় আইসিসি

ফাঁসিয়াখালী ইউপি’র উপ নির্বাচন শতভাগ সুষ্ঠু হবে : সাঈদী’কে ইসি কবিতা খানম

টেকনাফের যুবদল নেতা রাশেদের মৃত্যুতে সাবেক এমপি শাহজাহান চৌধুরীর শোক

চিকিৎসার জন্য রফিকুল ইসলাম মিয়াকে সিঙ্গাপুর নেওয়া হয়েছে

শিশুর মাথা ব্যাগে নিয়ে মদ খেতে গিয়েছিল সেই যুবক

সব রেকর্ড ভেঙেছে যমুনা-তিস্তার পানি

চকরিয়ায় অবৈধ ৫০ দোকান উচ্ছেদ

নবী(স.) রওজাতে মোনাজাতরত অবস্থায় খুটাখালীর শফিউজ্জামানের ইন্তেকাল

ধর্ষণ মামলার বিচারে ৭ দফা নির্দেশনা হাইকোর্টের

তাজউদ্দীনপুত্রের দেশে ফেরার পেছনের কথা

সৌদিআরবে চকরিয়ার হাজির মৃত্যু

জনপ্রতিনিধির সহায়তায় রোহিঙ্গা ভোটার, নেয়া হচ্ছে কঠোর ব্যবস্থা

জি এম কাদের জাতীয় পার্টির নতুন চেয়ারম্যান

ছেলেধরাকে পিটিয়ে হত্যা; ব্যাগ থেকে শিশুর মাথা উদ্ধার

পাসপোর্ট, এসিল্যান্ড অফিস দালালমুক্ত করা হবে: প্রতিমন্ত্রী

সরকারি কর্মকর্তারা সরল বিশ্বাসে দুর্নীতিতে জড়ালে অপরাধ হবে না: দুদক চেয়ারম্যান

রিফাত হত্যায় জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছে মিন্নি

কক্সবাজার সদর হাসপাতাল থেকে ছিনতাইকারীকে ধরে পুলিশে দিলো জনতা

লামায় ইয়াংছা খালের ভাঙনের কবলে ফয়জুল উলুম হামিউচ্ছুন্নাহ মাদ্রাসা

কক্সবাজার বাহারছড়ার মোঃ আলীর ‘গ্রেফতার’ নিয়ে পবিরারের বক্তব্য