ছালাম কাকলী ॥ মহেশখালী কালামার ছড়া পুলিশ ক্যাম্পের লাগোয়া এক আমেরিকা প্রবাসীর  বাড়ীতে ডাকাতির চেষ্টা চালিয়েছে সংঘবদ্ধ ডাকাতরা। দরজা খুলে না দেয়ায় ঐ বাড়ীতে ১৫/২০ রাউন্ড গুলি করায় লোহার দরজাসহ দ্বি-তল ভবনের ছাঁদ ঝাঁঝরা হয়ে গেছে। এ ঘটনাটি ঘটেছে ২৩ নভেম্বর রাত আড়াই টায় ইউছুপ হারুনের বাড়ীতে।

মহেশখালী উপজেলার কালামার ছড়া বাজারের দক্ষিণ পাশে লাগোয়া পূর্ব-ছামিরা ঘোনা এলাকার লোকজন জানান, ২৩ শে নভেম্বর রাত আড়াই টার সময় ব্যাপক গুলি বর্ষণে এলাকাবাসীর ঘুম ভেঙ্গে যায়। তারা দেখে যে, ২০/২৫ জনের ১টি ডাকাত দল আমেরিকা প্রবাসী ইউছুপ হারুনের বাড়ী ঘেরাও করে দরজা খুলতে বলে। কিছুক্ষণ পরপরই দরজায় ও দ্বি-তলা ভবনে গুলি করতে থাকে। গুলির আওয়াজে চারদিকে লোকজনের চিল্লা-চিল্লিতে মধ্যেও ডাকাতরা দীর্ঘ আধা ঘন্টা চেষ্টা করেও বাড়ী ওয়ালা দরজা খুলে না দেয়ায় ডাকাতরা নোনাছড়ির দিকে চলে যায়। ডাকাত দলের গুলিতে লোহার দরজা ও দ্বিতলা ভবনের ছাঁদ ঝাঁঝরা হয়ে গেছে। কালামারছড়া পুলিশ ক্যাম্পের পাশে ব্যাপক গুলা বর্ষণ হলেও উক্ত ফাঁড়ি পুলিশ ঘটনাস্থলে না যাওয়ায় এলাকাবাসী ও বাড়ী ওয়ালার মাঝে দেখা দিয়েছে ক্ষোভ আর হতাশা। আমাদের এ প্রতিনিধি ছালাম কাকলী ঘটনা স্থলে গেলে, আমেরিকা প্রবাসী ইউছুপ হারুনের পুত্র মকছুদ কান্নায় ভেঙ্গে পড়ে জানান, দীর্ঘ আধা ঘন্টা ধরে ব্যাপক গুলি চালানোর কারণে তাদের দ্বি-তলা ভবনের ছাঁদ ঝাঝরা হয়ে গেছে এবং লোহার দরজা গুলিতে খানখান হয়ে গেছে। এ বিষয়ে মহেশখালী থানার ইনর্চাজ প্রদীপ কুমার থেকে জানতে চাইলে তিনি জানান, তাকে কেউ এ ঘটনা সর্ম্পকে অবহিত করেনি। কেউ অবহিত করলে ঘটনা তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেবেন। অপরদিকে মহেশখালী উপজেলা চেয়ারম্যান হুসাইন ইব্রাহীম থেকে জানতে চাইলে তিনি জানান, পুলিশ অপরাধীদের দেখেও না দেখার ভান করে থাকার রহস্য কি তিনি তা জানেননা। তবে আমেরিকা প্রবাসীর বাড়ী ডাকাতির চেষ্টার ঘটনাটি ভয়াবহ। উক্ত বিল্ডিং এর সামনে লোহার দরজা ডাকাতদের গুলিতে খানখান হয়ে যাওয়া ও দ্বিতলা ভবনের ছাঁদ ঝাঁঝরা হয়ে যাওয়ার ঘটনা তদন্ত করার জন্য পুলিশ সুপারের হস্তক্ষেপ প্রয়োজন হয়েছে বলে তিনি দাবী করেন॥

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •