পিইসিই ২০৬, ইইসিইতে ১৮৬

হাফেজ মুহাম্মদ কাশেম, টেকনাফ  :

প্রাইমারী ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষার ১ম দিন শান্তিপূর্ণ পরিবেশে সম্পন্ন হয়েছে। টেকনাফে প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষার ১১টি কেন্দ্রে ১ম দিনে পিইসিতে ২০৬ জন এবং ইএইসিতে ১৮৬ জন পরীক্ষার্থী অনুপস্থিত ছিল। কোন পরিক্ষার্থী বহিস্কার হয়নি। অনুপস্থিত পরিক্ষার্থীদের মধ্যে ১০৬টি স্কুলের ১০৬ জন ছাত্র, ১০০ জন ছাত্রী, মোট ২০৬ জন। তাছাড়া ৩২টি মাদ্রাসার ৯১ জন ছাত্র এবং ৯৫ জন ছাত্রী, মোট ১৮৬ জন।

জানা যায়, টেকনাফে পরীক্ষায় অংশ গ্রহণের জন্য পিইসি হতে ১ হাজার ৯৩১ জন ছাত্র এবং ২ হাজার ২৯৮ জন ছাত্রীসহ মোট ৪ হাজার ২২৯ জন পরীক্ষার্থী রেজিষ্ট্রেশনভূক্ত হয়। পরীক্ষার ১ম দিনে ১০৬টি স্কুলের ১০৬ জন ছাত্র, ১০০ জন ছাত্রী, মোট ২০৬ জন অনুপস্থিত ছিল।

এদিকে ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষার জন্য ৩২টি মাদ্রাসার ছাত্র ৫৭৮ জন এবং ছাত্রী ৮২৪ জনসহ মোট ১ হাজার ৪০২ জন পরীক্ষার্থী রেজিষ্ট্রেশনভূক্ত হয়। পরীক্ষার প্রথম দিনে ৯১ জন ছাত্র এবং ৯৫ জন ছাত্রী, মোট ১৮৬ জন অনুপস্থিত ছিল। টেকনাফ উপজেলা চেয়ারম্যান, ভাইস চেয়ারম্যানদ্বয়, ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানবৃন্দ, উপজেলা নির্বাহী অফিসার, উপজেলা শিক্ষা অফিসার, মিডিয়াকর্মীগণ, কেন্দ্র কমিটির সদস্যবৃন্দ পরিক্ষার হলসমুহ পরিদর্শন করেছেন। সর্বমহলের আন্তরিকতায় ক্ষুদে পরিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণে উৎসব মুখর পরিবেশে শান্তিপুর্ণভাবে ১ম দিনের পরিক্ষা সম্পন্ন হয়েছে। ১নং হোয়াইক্যং সরকারী প্রাইমারী স্কুল কেন্দ্র পরিদর্শনে গিয়ে দেখা গেছে ক্ষুদে পরিক্ষার্থীরা শান্তিপুর্ণভাবে পরিক্ষা দিচ্ছে। এ কেন্দ্রে ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তার দায়িত্ব পালন করছেন একাডেমিক সুপারভাইজার মোঃ নুরুল আবসার এবং কেন্দ্র সচিবের দায়িত্ব পালন করছেন ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক বিমল বড়–য়া।

কেন্দ্রওয়ারী অনুপস্থিতি হচ্ছে ১নং হোয়াইক্যং সরকারী প্রাইমারী স্কুল কেন্দ্রে প্রাইমারীর ৫ জন ছাত্র, ৯ জন ছাত্রী, মোট ১৪ জন। ইবতেদায়ীর ১৪ জন ছাত্র, ৬ জন ছাত্রী, মোট ২০ জন, কেন্দ্রে মোট অনুপস্থিত ২৪ জন।

২নং নয়াবাজার সরকারী প্রাইমারী স্কুল কেন্দ্রে প্রাইমারীর ১০ জন ছাত্র, ১৩ জন ছাত্রী, মোট ২৩ জন। ইবতেদায়ীর ১৯ জন ছাত্র, ২৮ জন ছাত্রী, মোট ৪৭ জন, কেন্দ্রে মোট অনুপস্থিত ৭০ জন। ৩নং হ্নীলা শাহ মজিদিয়া সিনিয়র মাদ্রাসা কেন্দ্রে ইবতেদায়ীর ২৬ জন ছাত্র, ১৭ জন ছাত্রী, কেন্দ্রে মোট অনুপস্থিত ৪৩ জন।

৪নং হ্নীলা আদর্শ সরকারী প্রাইমারী স্কুল কেন্দ্রে প্রাইমারীর ২০ জন ছাত্র, ১২ জন ছাত্রী, কেন্দ্রে মোট অনুপস্থিত ৩২ জন।

৫নং লেঙ্গুরবিল সরকারী প্রাইমারী স্কুল কেন্দ্রে প্রাইমারীর ২৯ জন ছাত্র, ২১ জন ছাত্রী, মোট ৫১ জন। ইবতেদায়ীর ৭ জন ছাত্রী, কেন্দ্রে মোট অনুপস্থিত ৬০ জন।

৬নং সাবরাং সরকারী প্রাইমারী স্কুল কেন্দ্রে প্রাইমারীর ১২ জন ছাত্র, ১৬ জন ছাত্রী, মোট ২৮ জন। ইবতেদায়ীর ২ জন ছাত্র, ৫ জন ছাত্রী, মোট ৭ জন, কেন্দ্রে মোট অনুপস্থিত ৩৫ জন।

৭নং শাহপরীরদ্বীপ সরকারী প্রাইমারী স্কুল কেন্দ্রে প্রাইমারীর ৬ জন ছাত্র, ৩ জন ছাত্রী, কেন্দ্রে মোট অনুপস্থিত ৯ জন।

৮নং শামলাপুর সরকারী প্রাইমারী স্কুল কেন্দ্রে প্রাইমারীর ৩ জন ছাত্র, ৩ জন ছাত্রী, মোট ৬ জন। ইবতেদায়ীর ১১ জন ছাত্র, ১৪ জন ছাত্রী, মোট ২৫ জন, কেন্দ্রে মোট অনুপস্থিত ৩১ জন।

৯নং বড়ডেইল সরকারী প্রাইমারী স্কুল কেন্দ্রে প্রাইমারীর ৪ জন ছাত্র, ৩ জন ছাত্রী, মোট ৭ জন। ইবতেদায়ীর ৩ জন ছাত্র, ২ জন ছাত্রী, মোট ৫ জন, কেন্দ্রে মোট অনুপস্থিত ১২ জন।

১০নং জিনজিরা (সেন্টমার্টিনদ্বীপ) সরকারী প্রাইমারী স্কুল কেন্দ্রে প্রাইমারীর ৩ জন ছাত্র, ১ জন ছাত্রী, কেন্দ্রে মোট অনুপস্থিত ৪ জন।

১১নং টেকনাফ মডেল সরকারী প্রাইমারী স্কুল কেন্দ্রে প্রাইমারীর ১৪ জন ছাত্র, ১৮ জন ছাত্রী, মোট ৩২ জন। ইবতেদায়ীর ১৬ জন ছাত্র, ১৪ জন ছাত্রী, মোট ৩০ জন, কেন্দ্রে মোট অনুপস্থিত ৬২ জন।

অস্বাভাবিক বেশী পরিক্ষার্থী অনুপস্থিতি বিষয়ে টেকনাফ উপজেলা শিক্ষা অফিসার মোঃ এমদাদ হোসেন চৌধুরী (০১৮১৬৬০৯১৪৭) বলেন ‘অসুস্থতা, স্থান পরিবর্তন, পারিবারিক সমস্যা ইত্যাদি বিভিন্ন কারণে এই অবস্থা সৃস্টি হয়েছে’।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •