cbn  

মোঃ নাজিম উদ্দিন, দক্ষিণ চট্টগ্রাম:
দক্ষিণ চট্টগ্রামের সাতকানিয়া প্রশাসনের হস্তক্ষেপে বাল্যবিয়ে থেকে রক্ষা পেল দশম শ্রেণির এক ছাত্রী। তাঁর নাম তামান্না সোলতানা ফাহমিদা (১৫)। সেই সাতকানিয়া বালিকা বিদ্যালয়ের দশম শ্রেনীর ছাত্রী ও পৌরসভার আশেকের পাড়া এলাকার মোহাম্মদ সোলায়মানের মেয়ে।
স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ৯ নভেম্বর বৃহষ্পতিবার বিকাল ৫টায় স্থানীয় মসজিদে একই এলাকার আহমদ কবিরের প্রবাসী ছেলে জাহাঙ্গীর কবিরের সাথে ফাহমিদা’র বিয়ের কাবিননামা ও আকদ অনুষ্ঠানে দিন ধার্য্য ছিল। বাল্যবিয়ের খবর উপজেলা সহকারী কমিশনার(ভূমি) দীপঙ্কর তঞ্চঙ্গ্যার কাছে পৌঁছালে তিনি বিয়ের ঘন্টা খানেক পূর্বে  বর ও কনে পক্ষের উপস্থিত স্থলে পুলিশ নিয়ে সেখানে হাজির হন। প্রশাসনের উপস্থিতি টের পেয়ে বর পক্ষের লোকজন গা ঢাকা দিলেও কনের মা ও অন্যরা ধরা পড়ে যান। বাল্যবিয়ের আয়োজক দু’পরিবারকে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার দপ্তরে ডেকে নিয়ে বাল্য বিবাহের কুফল সম্পর্কে ধারনা দেয়ার পর কনের মা’র কাছ থেকে প্রাপ্ত বয়ষ্ক না হওয়া পর্যন্ত মেয়েকে বিয়ে দেবেন না মর্মে মোছলেকা নিয়ে ছেড়ে দেয়া হয়। সাতকানিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ মোবারক হোসেন বলেন, বাল্য বিয়ে আইনগত দন্ডনীয় অপরাধ সে কারনে এ বিয়ে বন্ধ করা প্রশাসনের দায়িত্ব ও কর্তব্যের অংশ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •