অনলাইন গেম ‘ব্লু হোয়েল’ থেকে সাবধান!

ব্লু হোয়েল একটা অনলাইন সুইসাইড গেম, যার ফাঁদে পরে সারা বিশ্বে শতশত টিনেজ ছেলে মেয়েরা আত্মহত্যার পথ বেছে নিচ্ছে।
গেমটি কোথাও ডাউনলোড করে পাওয়া যায় না। তবে বিশেষভাবে গেমটির কিউরেটর বা এডমিনিস্ট্রেটরের নজরে আসা যায়।
এরপর কিউরেটর বা এডমিনিস্ট্রেটর নিজেই যোগাযোগ করে গেমের অংশ হিসেবে প্রতিযোগীকে একেক দিন একেকটা চ্যালেঞ্জ টাস্ক দেয়। এভাবে পঞ্চাশ দিনের মোট পঞ্চাশটি চ্যালেঞ্জ পূরণ করতে হয় গেমটি শেষ করার জন্য।
চ্যালেঞ্জগুলোও অনেক অদ্ভুত। যেমন- হাত কেটে কিছু লেখা, চাকু দিয়ে শরীরে তিমি মাছ আঁকানো, উঁচু বিল্ডিং এ চড়া, মাঝরাতে কবরস্থানে যাওয়া, গায়ের ভেতর সুই ফোটানো, ভোর রাতে বাহিরে বের হয়ে যাওয়া ইত্যাদি।
প্রত্যেক চ্যালেঞ্জ শেষ করার পর এর ছবি আবার এডমিনিস্ট্রেটরকে পাঠাতে হয় প্রমাণ দেওয়ার জন্য। তখন এডমিনিস্ট্রেটর তার সাহসিকতার প্রশংসা করে তাকে পয়েন্ট দেয়।
এভাবে উনপঞ্চাশটি চ্যালেঞ্জ শেষ করার পর শেষ চ্যালেঞ্জ দেওয়া হয় সুইসাইড বা আত্মহত্যা করার।
আর এই চ্যালেঞ্জটিই বাস্তবায়ন করতে গিয়ে এ পর্যন্ত সারা বিশ্বে কয়েকশ টিনেজ ছেলে মেয়ে আত্মহত্যা করেছে। এমনকি পাশের দেশ ভারতেও বেশ কয়েকজন কিশোর আত্মহত্যা করেছে এই গেম খেলে। এর সাথে আমাদের দেশও নতুন করে যোগ হল।
আবার কেউ যদি গেমটি শুরু করার পর আর না খেলতে চায়, তখন তাকে বিভিন্ন ভাবে হুমকি দেওয়া হয় তার অথবা আত্মীয় স্বজনের ক্ষতি করার। যদিও এসব হুমকির কোন বাস্তবতা নেই, কিন্তু অনেক টিনেজরা এগুলো হুমকিকেই সত্যি ভেবে ভয় পেয়ে গেমটা চালিয়ে যায়।
রাশিয়ার “ডেথ গ্রুপ” নামের একটা আন্ডারগ্রাউন্ড গ্রুপ গেমটি চালায়। এই গেমটি ২০১৩ সালে রাশিয়ার ফিলিপ বুদেকিন নামের একজন মনোবিজ্ঞানের ছাত্র তৈরি করে।
সম্প্রতি রাশিয়ার পুলিশ ফিলিপকে গ্রেপ্তার করার পর এই ভয়াবহ তথ্য বের হয়ে এসেছে।
ডাটা অনুযায়ী আট বছর থেকে বাইশ বছর পর্যন্ত কিশোর কিশোরীরা এই গেমে আসক্ত। এদের মধ্যে টিনেজরা বেশি আত্মহত্যা করেছে।
তাই নিজের কাছের কিশোর কিশোরীদের দিকে নজর রাখা উচিত সবসময়, কেউ এই গেমের সাথে জড়িয়ে গেছে কি না কিংবা কেউ কোন অস্বাভাবিক আচরণ করছে কি না।
এমন অস্বাভাবিক কিছু চোখে পড়লে অবশ্যই প্রতিরোধমুলক ব্যবস্থা সাথে সাথে গ্রহণ করতে হবে।।।

সর্বশেষ সংবাদ

সমাজসেবায় মাদার তেরেসা স্বর্ণ পদক পেলেন কামরুল হাসান

পরিচালকের যৌনতার অভিযোগে প্রিন্সিপ্যালের পদত্যাগ

ফেঁসে গেলো খরুলিয়ার ভূমিদস্যু শফিক, ১২ জনের বিরুদ্ধে মামলা

বসতভিটা রক্ষার চেষ্টাই কাল হলো তাদের

বর্তমান শাসনামলে খেলাপি ঋণ সবচেয়ে বেশি বেড়েছে: মেনন

সকল মানুষের কাছে চিরকাল স্মরণীয় হয়ে থাকবেন কবি আল মাহমুদ

নুসরাত হত্যাকারিদের দ্রুত শাস্তি দাবী পূজা উদযাপন পরিষদের

খরুলিয়ার জমি সংক্রান্ত বিরোধের ঘটনাস্থল পরিদর্শনে এমপি কমল

চকরিয়ায় সড়ক দুর্ঘটনায় এনজিও কর্মী নিহত

পেকুয়ায় কাছারীমোড়া সাহিত্যকেন্দ্রের উদ্বোধন

বাংলাদেশ সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির দেশ হিসেবে দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে -ধর্ম প্রতিমন্ত্রী

শৃংখলা মেনে চললে যানজটের ও দুর্ঘটনাও কমে আসবে – ভারপ্রাপ্ত পুলিশ সুপার

শ্রীলঙ্কা হামলায় আইএসের বুনো উল্লাস

শ্রীলঙ্কায় হামলার পেছনে ‘ন্যাশনাল তৌহিদ জামাত’

চট্টগ্রামে আসামি ধরতে গিয়ে গোলাগুলিতে আহত ৬ পুলিশ

মক্কা থেকে হারিয়ে গেল কক্সবাজারের সাদ

আল্লাহর কসম খেয়ে বলছি মাদকের সাথে আমি জড়িত নই- দিদার বলী

জিন তাড়ানোর বাহানায় যৌন সম্পর্ক গড়তো সেই পিয়ার

নুসরাত হত্যাকাণ্ডে অভিযুক্ত রুহুল আমিনের উত্থানের নেপথ্যে

বেনাপোল বন্দরের নির্মান কাজের চুরি যাওয়া রড উদ্ধার