“তবে বিদায়, প্রিয় ইউএনও”

pekua-uno.jpg

ইমরান হোসাইন, পেকুয়া :

‘ইস, আর কিছুদিন যদি তিনি থাকতো, তবে নিশ্চয়ই পেকুয়া উপজেলার উন্নয়ন আরো বেশি হতো’। যদিও কর্মসুত্রের কারনে তিনি পেকুয়া ছেড়ে চলে যাবেন তবুও পেকুয়াবাসীর মতে তার মত বিজ্ঞ অভিজ্ঞ, যোগ্য, সৃষ্টিশীল মানুষের পেকুয়া থাকা বড় প্রয়োজন। অনেক অসম্ভবকে সম্ভব করেছেন, অনেক কঠিন কাজকে সহজ করেছেন। পেকুয়ায় যে কয়জন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা দায়িত্ব পালন করেছেন তার মধ্যে ইউএনও মারুফুর রশিদ খাঁনের নাম পেকুয়ার মানুষের হৃদয়ে লিখা থাকবে। “তবে বিদায়, প্রিয় ইউএনও”

সোমবার বিকালে পেকুয়া উপজেলা হলরুমে আয়োজিত বিদায় ও বরণ অনুষ্ঠানে এই মন্তব্য করেন এই মন্তব্য করেন পেকুয়া উপজেলা চেয়ারম্যান শাফায়ত আজিজ রাজু।

সভায় বক্তারা আরো বলেন, ‘উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তারা প্রশাসনিক কাজের পাশাপাশি উপজেলার উন্নয়নে যে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখতে পারেন, পেকুয়া উপজেলার সদ্য বিদায়ী নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ মারুফুর রশিদ খাঁন তার বড় উদাহরণ। পেকুয়াতে আসার পর গত দুই বছরে তিনি যেখানেই হাত দিয়েছেন সে জায়গাটি যেন সোনায় ভরে দিয়েছেন।’ ইউএনও মারুফকে নিয়ে স্মৃতি বা মন্তব্য শুধু তাদেরই নয়, উপজেলার সবদিকেই সাধারণ মানুষ থেকে শুরু করে প্রশাসনের কর্মকর্তা কর্মচারী সবার মুখেই এমন মন্তব্য শোনা যাচ্ছে গত কয়েকদিন।

পেকুয়া উপজেলা পরিষদ ও ইউনিয়ন পরিষদের উদ্যোগে আয়োজিত এসভায় সভাপতিত্ব করেন পেকুয়া উপজেলা চেয়ারম্যান এসোসিয়েশনের সভাপতি ও শিলখালী ইউপি চেয়ারম্যান নুরুল হোসেন।

পেকুয়া উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান নুরুজ্জামান মঞ্জু’র সঞ্চালনায় ওই অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন, কক্সবাজার জেলা আ’লীগের উপদেষ্টা এড. কামাল হোসেন, পেকুয়া উপজেলা আ’লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি শাহনেওয়াজ বিটু, সাধারণ সম্পাদক আবুল কাশেম, কক্সবাজার জেলা আ’লীগের সদস্য এস.এম গিয়াস উদ্দিন, পেকুয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জিয়া মোঃ মোস্তাফিজ ভূঁইয়া, উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান লুৎফা হায়দার রণি, পেকুয়া উপজেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি এস.এম মাহাবু, সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম, পেকুয়া উপজেলা প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক এম দিদারুল করিম প্রমুখ।

সভায় আরো উপস্থিত ছিলেন কুতুবদিয়া’র ইউএনও তানভীর সালেহিন গাজী, পেকুয়া সদর ইউপি চেয়ারম্যান বাহাদুর শাহ, উজানটিয়া ইউপি চেয়ারম্যান শহিদুল ইসলাম, মগনামা ইউপি চেয়ারম্যান শরাফত উল্লাহ ওয়াসিম, টইটং ইউপি চেয়ারম্যান জাহেদুল ইসলাম, বারবাবাকিয়া ইউপি চেয়ারম্যান বদিউল আলম, উপজেলা বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রধান, ইউপি সদস্য সদস্যাগণসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

পেকুয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ মারুফুর রশিদ সোমবার পেকুয়াতে ইউএনও হিসেবে শেষ অফিস করেন। একইদিনে পেকুয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হিসেবে চাঁদপুর জেলার ফরিদগঞ্জ উপজেলা থেকে বদলি হয়ে আসা জয়নাল আবেদিন দায়িত্ব বুঝে নেন।

এদিকে আজ সোমবারই পেকুয়া ছেড়ে যাবেন ইউএনও মারুফ রশিদ। তাঁর এই ছেড়ে যাওয়া পেকুয়ার মানুষের হৃদয়ে ক্ষতের সৃষ্টি হলেও সরকারি চাকুরির নিয়মে তাঁকে একদিন চলে যেতেই হবে।

Top