জেলা ছাত্র মৈত্রীর সাম্প্রদায়িকতা বিরোধী মানববন্ধন

IMG_6048.jpg

সংবাদ বিজ্ঞপ্তি:
ব্রাক্ষণবাড়িয়ার নাসির নগরে সনাতন ধর্মালম্বীদের বাড়িঘর ও দেবালয়ে হামলা, ভাংচুর ও অগ্নি সংযোগ, গাইবান্ধায় সাওতালদের উপর হামলা এবং দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের উপর নির্যাতন ও জায়গা জমি দখলের বিরুদ্ধে সকল অসম্প্রদায়িক শক্তিকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে। একটি গণতান্ত্রিক রাষ্ট্রে সংখ্যালঘু এবং সংখ্যাগুরু বলতে কিছু নেই। সকলের নাগরিক অধিকার সমান। ধর্ম ও সম্প্রদায় নির্বিশেষে সকলের মৌলিক মানবাধিকার নিশ্চিত করা সরকার ও রাষ্ট্রের অন্যতম দায়িত্ব। তাই সাম্প্রদায়িক অপশক্তি যাতে সাম্প্রদায়িত উষ্কানি দিয়ে সংখ্যালগুদের উপর নির্যাতন চালাতে না পারে।
এ ব্যাপারে সরকারকে আরও কঠোর পদক্ষেপ গ্রহণ করতে হবে। হামলাকারীরা যে দলেরই হোক না কেন, তাদেরকে অবিলম্বে গ্রেফতার পূর্ব বিচারের আওতায় আনতে হবে।
গত ১৩ নভেম্বর বিকাল ৩ ঘটিকার সময় পুরাতন শহীদ মিনার চত্বরে জেলা ছাত্র মৈত্রী আয়োজিত সাম্প্রদায়িকতা বিরোধী মানববন্ধনে বক্তারা এসব কথা বলেন।
বাংলাদেশ ছাত্র মৈত্রী কক্সবাজার জেলা শাখার সভাপতি ছাত্রনেতা সুজা উদ্দিনের সভাপতিত্বে, সাধারণ সম্পাদক জিকু পালের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে সংহতি প্রকাশ করে বক্তব্য রাখেন জেলা ঐক্য ন্যাপের সাধারণ সম্পাদক ও কক্সবাজার সোসাইটির সভাপতি কমরেড গিয়াস উদ্দিন, জেলা আওয়ামীলীগের ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক ড. মুহাম্মদ নুরুল আবছার, জেলা সিপিবির সাবেক সাধারণ সম্পাদক কমরেড সমীর পাল, কক্সবাজার সোসাইটির নির্বাহী সদস্য মফিজ উল্লাহ। এতে আরও বক্তব্য রাখেন জেলা ছাত্র মৈত্রীর সাংগঠনিক সম্পাদক আশিকুর রহমান মুন্না, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক আকাশ ওয়াহিদ, দপ্তর সম্পাদক গিয়াস উদ্দিন, শুভ, মোর্শেদ, বাপ্পী, রিয়াদ, শরীফ, শাকিল, সাইফুল, মোবারক, সাজিদ, সাকিব, নাবিদ ইমতিয়াজ শিহাব ও আরাফাত রহমান খোকো প্রমুখ।

Top