টেকনাফে উন্নয়ন মেলায় মৃত্যু দাবীর চেক হস্তান্তর

teknaf-pic-11.01-2-e1484101775568.jpg

হাফেজ মুহাম্মদ কাশেম, টেকনাফ: 

টেকনাফে উন্নয়ন মেলার শেষ দিনে প্রাইম ইসলামী লাইফ ইন্স্যুরেন্স কোম্পানী লিমিটেড এর মৃত্যু দাবীর চেক হস্তান্তর করা হয়েছে। ১১জানুয়ারী বুধবার দুপুর ১২টায় টেকনাফ উপজেলা চত্বরে আয়োজিত উন্নয়ন মেলায় টেকনাফ অফিসের ইনচার্জ হাফেজ আবদুল করিমের সভাপতিত্বে মাওঃ ফরিদুল আলমের কোরআন তেলাওয়াতের মাধ্যমে টেকনাফ অফিসের গ্রাহক মরহুমা ছুরা খাতুনের মৃত্যু দাবী চেক হস্তান্তর অনুষ্ঠান সম্পন্ন হয়।
এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন প্রাইম ইন্সুরেন্স কোম্পানীর এএমডি আনিসুর রহমান। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ইভিপি ও ক´বাজা জোন ইনচার্জ শাহাদাত হোসেন ছিদ্দীকি, উপজেলা একাডেমিক সুপার ভাইজার নুরুল আবছার, সমবায় অফিসার শামসুল আলম কুতুবী, মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা আলমগীর কবির, সমাজ সেবা কর্মকর্তা আবুল কালাম আজাদ, এসভিপি মুসা কলিম ইল্লাহ, ফারইষ্ট ইসলামী লাইফ ইন্স্যুরেন্স কোম্পানীর টেকনাফ জোন ইনচার্জ সাংবাদিক সাইফুল ইসলাম সাইফী। সিনিয়র সাংবাদিক মোঃ আশেকুল্লাহ ফারুকী, টেকনাফ নিউজ ৭১ ডটকম’র সম্পাদক ও প্রকাশক নুর হাকিম আনোয়ার, সাংবাদিক মুহাম্মদ জুবাইর, ফারইষ্ট ইসলামী লাইফ ইন্স্যুরেন্স কোম্পানীর মোঃ হাসান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
জানা যায় কোম্পানীর তাবাররু তহবিল থেকে নিয়মানুযায়ী নমিনির টাকার চেক প্রদান করা হয়। মরহুমা ছুরা খাতুনের মেয়ে ফাতেমা খাতুন চেক গ্রহনের পর প্রতিক্রিয়ায় বলেন আমরা বড় অসহায় ছিলাম। আমার তেমন কিছু নেই। আমার আম্মা এই কোম্পানীতে একটি বীমা একাউন্ট খোলার কারনে আজ আমরা এই অর্থ নিয়ে নিজের পায়ে দাঁড়াতে পারব বলে আশা করছি। ভিক্ষা না করে অন্তত নিজের পরিবারের সদস্যদের সাময়িক প্রয়োজন মিটাতে পারব। চেকটি পেয়ে আজ এই অসহায় সময়ে নিজকে ধন্য মনে হচ্ছে।
চেক হস্তান্তর অনুষ্ঠানের আলোচনায় বক্তাগণ বলেন দেশের সেরা বীমা কোম্পানী প্রাইম ইসলামী লাইফ ইন্সুরেন্স কোম্পানী লিমিটেড টেকনাফ থেকে তেতুলিয়া গ্রাহকের আমানত ও আস্থা অর্জনে সক্ষম হয়েছে। মেয়াদপূর্তীতে লাভসহ প্রচুর সুবিধা পেয়ে গ্রাহকরা নতুনভাবে পলিসি গ্রহনই প্রমান করে বীমা শিল্পে প্রাইম সফল। সুদিনের সঞœয় দুর্দিনের হাসি হিসাবে কোম্পানী গ্রাহকের মনোনিত নমিনীর নিকট চেক হস্তান্তর করছে। হ্নীলা অফিসের মুহিবুর রহমান খানের পরিচালনায় অনুষ্টিত সভায় সর্বস্থরের মাঠকর্মী, গ্রাহক ও শুভানুধ্যায়ী, প্রাইম, ফারইষ্ট, প্রগতি লাইফ ইন্সুরেন্স কোম্পানীর কর্মকর্তাগণ উপস্থিত ছিলেন।
উল্লেখ্য, ছুরা খাতুনের নমীনি স্বামী নাজির হেসেন ৩২ হাজার টাকা, ছেলে ফিরুজ মিয়া ৫৪ হাজার টাকা, মেয়ে ফাতেমা খাতুন ৩৪ হাজার টাকার চেক প্রধান অতিথির কাছ থেকে গ্রহন করেন।

Top